শৈলকুপায় বাড়িতে ডেকে নিয়ে ৬ মাসের গর্ভবতী মহিলার সাথে জোর করে বৃদ্ধের বিয়ে

0
22

ঝিনাইদহ জেলা প্রতিনিধিঃ

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় স্বামী পরিত্যাক্ত এক মহিলা ৬ মাসের গর্ভবতী হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার ত্রিবেনী ইউনিয়নের ছোট বোয়ালিয়া গ্রামে।এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, ছোট বোয়ালিয়া গ্রামের আকুলের বোন রেখা (৫০) ২০ বছর আগে স্বামী পরিত্যাক্ত হয়ে ভাইয়ের বাড়ীতে বসবাস করতেন। তিনি ৫/৬ মাসের গর্ভবতী হয়েছেন বলে জানাজানি হলে এলাকায় তুলকালাম সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে রেখা বলেন এই সন্তান পাশ্ববর্তী গ্রাম রতিডাঙা ট্রলার ঘাট এলাকার ঝন্টুর (৫৫)। ওর সাথেই আমার ২/৩ বছর সম্পর্ক ছিল। পরে এলাকাবাসী ঝন্টুকে সুকৌশলে ডেকে এনে তার ছেলেকে সাক্ষী বানিয়ে ৫ লাখ টাকা দেনমহর করে বিয়ে দেয়।এদিকে ঝন্টু বলেন, ওই মহিলার সাথে অনেকের সম্পর্ক ছিল অনেকের সাথে মেলামেশা করতো, আমার সাথে তার কোন সম্পর্ক নেই। এই সন্তান আমার না। আমাকে ডেকে এনে মারধর করে জোরপূর্বক বিয়ে দিয়েছে।তিনি আরো বলেন, আমার কাছে ১ লাখ টাকা দাবী করে, টাকা দিতে অস্বীকার করলে ৫ লাখ টাকা দেনমহর ধায্য করে বিয়ে দেয়। ওই মহিলাকে শিখানো কথা মতো আমাকে বাধ্য করেছে বিয়ে করতে। আমি বিয়ে করতে অস্বীকার করলে ওরা আমার ছেলে বিপ্লবকে মারধর করে এবং বাধ্য করে সাক্ষী হতে। ঝন্টুর ছেলে বিপ্লব কেদে কেদে বলে,আমার বাবা বিয়ে করতে অস্বীকার করলে ওরা আমাকে ডেকে নিয়ে মারধর করে ও মেরে ফেলার হুমকি দেয় এবং বলে এই বিয়েতে আমার সাক্ষী দিতে হবে। এছাড়া ১০ লাখ টাকা কাবিন করতে হবে। বাধ্য হয়ে আমি সাক্ষী হয়েছি। অন্যদিকে বিয়ের খবর শুনে কান্নায় ভেঙে পড়ে ঝন্টুর পরিবারের লোকজন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here