September 22, 2021, 5:38 am

বিজিবির অভিযানে ১৪ বোতল উদ্ধার ভারত থেকে আসছে নতুন ধরণের মাদকনাম “ডায়ালাক্স ডিসি সিরাপ”

ঝিনাইদহ জেলা প্রতিনিধিঃ
জেলা ব্যাপী ব্যাপক হারে মাদকের ছড়াছড়ির মাঝে দুঃসংবাদ দিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। তারা ঝিনাইদহের মহেশপুর সীমান্ত দিয়ে আসা নতুন এক ধরণের মাদকের চালান ধরতে সক্ষম হয়েছে। মাদক চোরাচালানীদের কাছে এটা নতুন না হলেও দেশে একেবারেই অপরিচিত। সোমবার ঝিনাইদহের মহেশপুর ৫৮ বিজিবির সহকারী পরিচালক নজরুল ইসলাম খান এক ই-মেইল বার্তায় নতুন ধরণের এই মাদক আইটেমের তথ্য জানান। প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে, শনিবার মধ্য রাতে গোপন সুত্রে খবর পেয়ে বিজিবি সদস্যরা জেলার মহেশপুর উপজেলার কাজীরবেড় গ্রামে অভিযান চালিয়ে একটি বাঁশ বাগানের মধ্য থেকে মালিক বিহীন অবস্থায় ১৪ বোতল “ডায়ালাক্স ডিসি” সিরাপ নামে এই মাদক উদ্ধার করে। বিজিবি ঝিনাইদহ মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তরের সাথে কথা বলে জানতে পেরেছে ডায়ালাক্স ডিসি সিরাপ একটি নতুন ধরণের ওষুধ আইটেম। এটি ফেনসিডিলের বিকল্প হিসাবে কাজ করে। এতে অনুরূপ উপাদান রয়েছে। বিজিবির প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ফেনসিডিলের বিরুদ্ধে সীমান্ত এলাকায় বিজিবি সদস্যরা ব্যাপক অভিযান পরিচালনা করায় মাদক পাচারকারীরা বিকল্প হিসাবে ভারত থেকে ডায়ালাক্স ডিসি সিরাপ আমদানি করছে। যা বাংলাদেশে একেবারেই অপরিচিত আইটেম। ইন্টারনেট থেকে প্রাপ্ত তথ্যে জানা গেছে, ভারতের ডক্টরস রেড্ডিস ল্যাবরোটরিজ লিমিটেডের তৈরী ১০০ এমএল সিরাপের ভারতীয় মুল্য ১৩৩ টাকা। এই সিরাপ পান করলে হালকা মাথা ধরা, নিদ্রা লাগা, দৃষ্টিশক্তি ঝাপসা হওয়া বা স্পষ্টভাবে চিন্তাভাবনার পরিবর্তন অনুভব করবে। এই সিরাপ পান করে ড্রাইভ এবং অন্যান্য কাজ করা থেকে বিরত থাকতে বলা হয়েছে। এলার্জি চিকিৎসায় “ডায়ালাক্স ডিসি” সিরাপ কার্যকর বলে উল্লেখ করা হয়েছে। এদিকে করোনার মধ্যেও বানের পানির মতো সীমান্ত দিয়ে গাজা, ফেনসিডিল, মদ ও ইয়াবার চালান আসছে। মহেশপুর ৫৮ বিজিবি, ঝিনাইদহ র‌্যাব-৬, থানা পুলিশ ও ঝিনাইদহ মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর প্রায় প্রতিদিন মাদকের বড় বড় চালানসহ পাচারকারীদের গ্রেফতার করছে। ঝিনাইদহের গ্রামাঞ্চলে মাদকের ভয়াবহতা ছড়িয়ে পড়েছে। গ্রাম, পাড়া মহল্লার উঠতি বয়সি যুবকরা মদকের নীল ছোবলে আাক্রান্ত হচ্ছে। কোন ভাবেই থামানো যাচ্ছে না। আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর এতো কড়া নজরদারী ও অভিযানের মধ্যেও কেন মাদকের চালান ঠেকানো যাচ্ছে না এমন প্রশ্ন তুলেছেন অভিভাবকরা। এদিকে ঝিনাইদহ র‌্যাবের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, তারা ঝিনাইদহ বাস টার্মিনাল এলঅকায় অযিান চালিয়ে ২০১ পিস ইয়াবাসহ আরিফ ও রিপন নামে দুই মাদক পাচারকারীকে আটক করেছে। একই দিন কুষ্টিয়ার দৌলতপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৪০৫ পিস ইয়াবাসহ শাহাজামাল ফনি নামে এক মাদক কারবারীকে আটক করে। ঝিনাইদহ র‌্যাবের কোম্পানী কমান্ডার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ মাসুদ আলম এবং স্কোয়াড কমান্ডার এএসপি এইচ এম শফিকুর রহমান এই অভিযানের নেতৃত্ব দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ:
BengaliEnglish