December 9, 2021, 12:41 am

ভাড়া বাড়িয়েও ফের প্রত্যাহার করে নিল রেল, সাফাই নির্দেশিকার ‘ভুল ব্যাখ্যার’

বর্ধমান থেকে গুসকরা পর্যন্ত যে দূরত্ব যেতে ১০ টাকা লাগত, সেই দূরত্ব যেতে ৩০ টাকা দিতে হচ্ছে বলে সাধারণ মানুষের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়।

‌ভাড়া বাড়িয়ে ফের তা প্রত্যাহার করে নিতে বাধ্য হল রেল। পূর্ব রেলের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, বিভিন্ন রুটে চলা প্যাসেঞ্জার ও মেমু ট্রেনের ভাড়া একই থাকছে। বর্ধিত হারে ভাড়া নেওয়া হবে না।
এদিন রেলের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, রেল বোর্ডের একটি নির্দেশিকার ভুল ব্যাখ্যার কারণেই বিভ্রান্তি তৈরি হয়েছিল। রেল বোর্ডের নির্দেশিকার ভুল ব্যাখ্যা করা হয়েছে। রেল সূত্রে জানা গিয়েছে, সংবাদমাধ্যমে যাত্রীদের ক্ষোভ বিক্ষোভের কথা প্রকাশ্যে আসার পরই রেল বোর্ডের তরফে পূর্ব রেল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। এরপরই রেলের তরফে জানিয়ে দেওয়া হয়, পুরনো ভাড়াই বহাল থাকছে। ভাড়া বাড়ছে না। পূর্ব রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক একলব্য চক্রবর্তী জানান, ‘‌রেলওয়ে বোর্ডের একটি নির্দেশিকার প্রেক্ষিতেই বর্ধিত ভাড়া নেওয়া হচ্ছিল। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ওই নির্দেশিকার ভুল ব্যাখ্যা করা হয়েছে। তাই আপাতত কোনও ট্রেনেরই ভাড়া বাড়ছে না।
আরও পড়ুন।
👉বরফে ঢাকা জনমানবহীন প্রান্তর! সীমাহীন পথে হাঁটছি, ছবি দিয়ে জানালেন দেব

লোকাল ট্রেন শুরু হওয়ার পর থেকে বেশ কিছু রুটে রেলের ভাড়া বেড়ে যায়। যে সব রুটে প্যাসেঞ্জার ও মেমু ট্রেন চলে, সেই সব রুটে ট্রেনের ভাড়া তিন গুন বেড়ে গিয়েছে বলে সাধারণ মানুষ দাবি করেন। বর্ধমান থেকে গুসকরা পর্যন্ত যে দূরত্ব যেতে ১০ টাকা লাগত, সেই দুরত্ব যেতে ৩০ টাকা দিতে হচ্ছে বলে সাধারণ মানুষের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়। এই রকম অনেক প্যাসেঞ্জার ট্রেনেরই ভাড়া বেড়ে যায়। তবে ফের রেল বর্ধিত ভাড়া প্রত্যাহার করে নেওয়ায় সাধারণ মানুষের স্বস্তি বাড়বে বলেই মনে করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ:
BengaliEnglish