June 13, 2021, 3:35 am

যে কারণে পেনসিলভানিয়া ও জর্জিয়ার ভোট গণনায় এত সময় লাগছে

অনলাইন ডেস্ক।।
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফলাফল পেতে এবারের দীর্ঘসূত্রিতার একটি বড় কারণ কয়েকটি অঙ্গরাজ্যের ডাকযোগে পাওয়া ফলাফল গণনায় দেরি হওয়া। কিন্তু সারাদেশেই ডাকযোগে ভোটগ্রহণের সুযোগ থাকলেও পেনসিলভানিয়া, নেভাদা ও জর্জিয়ার মতো অঙ্গরাজ্যগুলোতে এসব ভোট গণনা করতে কেন কয়েকদিন সময় লাগল নানা মহলে সে প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে।
এ প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে হলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অঙ্গরাজ্যগুলোর নির্বাচনি আইনের পার্থক্য জানতে হবে। দেশটির প্রতিটি অঙ্গরাজ্য সেখানকার স্থানীয় সরকার ও রাজ্যের কংগ্রেসের আইন অনুযায়ী কাজ করে।
উদাহরণস্বরূপ, ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের আইনে বলা হয়েছে, ডাকযোগে পাওয়া ভোট, মূল নির্বাচনের ২১ দিন আগেই গণনা করে ফেলা যাবে। ঠিক এ কারণেই ৩ নভেম্বর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গ্রহণ শেষ হওয়ার পরপরই ওই অঙ্গরাজ্যে ডাকযোগে পাওয়া ভোটের ফলাফলটি আগে ঘোষণা করা হয় যেখানে দেখা যায় ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের চেয়ে এগিয়ে গেছেন। কিন্তু সময় বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটকেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে প্রদান করা ভোটে ট্রাম্প এগিয়ে যান এবং এক সময় ফ্লোরিডায় জয়লাভ করে সেখানকার ২৯টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোটের সবগুলো হাতিয়ে নেন।
কাজেই ফ্লোরিডার জনসংখ্যা পেনসিলভানিয়ার চেয়ে বেশি হওয়া সত্ত্বেও ভোটের রাতেই ফ্লোরিডার ফলাফল ঘোষিত হয়ে যায়।
৪০টির বেশি অঙ্গরাজ্যে কমবেশি একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটে। কিন্তু বাকি অঙ্গরাজ্যগুলোতে ভোট গণনার চূড়ান্ত ফল পেতে দেরি হওয়ার কারণে পাঁচদিন পরও নির্বাচিত প্রেসিডেন্টের নাম ঘোষণা করা সম্ভব হচ্ছে না।
পেনসিলভানিয়া অঙ্গরাজ্যের কংগ্রেসে গত বছরের অক্টোবরে এমন একটি আইন পাস করা হয় যাতে ভোটের দিন শেষ না হওয়া পর্যন্ত ডাকযোগে পাওয়া ভোট গণনার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়।রিপাবলিকানদের নিয়ন্ত্রিত ওই কংগ্রেসের এই আইনের কারণে ৩ নভেম্বর সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত পেনসিলভানিয়া অঙ্গরাজ্যে ডাকযোগে পাওয়া ভোট গণনা শুরু করা যায়নি। আর ডাকযোগে পাওয়া ভোটের প্রায় ৮০ শতাংশ বাইডেন পেয়েছেন বলেই সরাসরি ভোটকেন্দ্রে উপস্থিত হওয়া ভোটারদের রায়ে ট্রাম্প এগিয়ে গেলেও ডাকে পাওয়া ভোটে বাইডেন ট্রাম্পকে ছাড়িয়ে যান। আর এই ভোট গণনা করতে প্রায় চারদিন লেগে যায়। জর্জিয়া এবং নেভাদার মতো অঙ্গরাজ্যগুলিতেও একই ঘটনা ঘটে।
সূত্র: পার্সটুডে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ:
BengaliEnglish