July 21, 2024, 8:06 am

কাজিপুরের গান্ধাইল সাবরেজিস্ট্রী অফিসে প্রতারণার শিকার হচ্ছে জমি ক্রয় বিক্রয় কারীরা

সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলার গান্ধাইল সাব রেজিস্ট্রী অফিসে নামধারী দলিল লেখক দ্বারা প্রতারণার শিকার হচ্ছে জমি ক্রয়, বিক্রয় কারীরা।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক জমি ক্রয়, বিক্রয় কারী জানান গান্ধাইল সাব রেজিস্ট্রী অফিসে প্রায় ১০/১২জন নামধারী দলিল লেখক আছে যারা নিজেকে
দলিল লেখক বলে দাবি করে, আসলে তারা দলিল লেখক না রেজিস্ট্রী দলিল লেখকের কাছে কাস্টমার নিয়ে আসেন।

জমি ক্রয় বিক্রয় কারীদের বেকায়দায় ফেলে অফিস খরচের নামে প্রতি দলিলে সরকারি ফ্রির চেয়ে ১০/ ১২ হাজার টাকা বেশিতে কাজ করতে বাদ্য করে নামধারী দলিল লেখক।

মঙ্গলবার (২২ মার্চ) সরে জমিনে গিয়ে সুত্রে যানা যায় গান্ধাইল সাব রেজিস্ট্রী অফিসে নামধারী দলিল লেখক নোমান,আনোয়ার, ও আব্দুল্লাহ সহ ১০/১২ জন নামধারী দলিল লেখক দ্বারা প্রতারণার শিকার হচ্ছে জমি ক্রয়, বিক্রয় কারীরা।

দীর্ঘ দিন ধরে এই চক্রটি কাজ করে আসছে বলে সুত্রে যানা যায়।

গান্ধাইল সাব রেজিস্ট্রী দলিল লেখক সমিতির সভাপতি দলিল লেখক শমসের আলীর কাছে নামধারী দলিল লেখকের ব্যাপারে জানতে চাইলে এই প্রতিনিধিকে জানান এখানে আমরা যারা দলিল লেখক আছি তাদের সহকারী হিসেবে কাজ তারা, সহকারীরা নিজেরাও স্যারের সামনে যায় দলিল ধরে।

গান্ধাইল সাব রেজিস্ট্রী দলিল লেখক সমিতির সাধারণ সম্পাদক দলিল লেখক শফিকুল ইসলাম বলেন রেজিস্ট্রীকৃত দলিল লেখক ছাড়া সহকারী বলে আইনে কিছু নেই, অফিসে প্রবেশ করার প্রশ্নই আসে না যারা এগুলো করে তারা অন্যায় করে তাদের আইনের আওতায় আনা উচিত।

সাব রেজিস্ট্রী অফিস সহকারী রজব আলী জানান আমাদের অফিসে রেজিস্ট্রীকৃত দলিল লেখক ছাড়া কোন দালাল প্রবেশ করার এখতিয়ার নেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     আরও সংবাদ :