কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে ২৫ বছর পর অক্ষত মৃতদেহ উদ্ধার

0
32

অনলাইন ডেস্ক ।
কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে মাটি কাঁটতে যেয়ে দাফনের ২৫ বছর পরে অক্ষত অবস্থায় একটি লাশ পাওয়া গেছে। নূরুজ্জামান নামের উক্ত ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার করে পুনরায় দাফন করেছে স্বজনেরা।

শুক্রবার বিকেলে কুমারখালী উপজেলার যদুবয়রা ইউনিয়নের বহলবাড়িয়া গ্রামে এই অলৌকিক ঘটনাটি ঘটেছে। নূরুজ্জামান ঐ গ্রামের মৃত মনোহর মিস্ত্রির কাপড় ব্যবসায়ী ছেলে ছিলেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গ্রামের আতর আলীর ছেলের নতুন বাড়ি বানানোর জন্য মাটি কাটতে গেলে লাশ দেখতে পায় শ্রমিকরা। পরে স্থানীয়রা মৃতদেহ সনাক্ত করে এবং সন্ধায় বহলবাড়িয়া কবরস্থানে পুনরায় দাফন করা হয়।

মৃতদেহ সনাক্ত করে নিহতের মামাতো ভাই সানোয়ার বলেন, নুরুজ্জামান একজন সৎ কাপড়ের ব্যবসায়ী ছিলেন। প্রায় ২৫ বছর আগে ঢাকা থেকে বাড়ি ফেরার পথে সে ডাকাত দলের আক্রমনের শিকার হয়। নুরুজ্জামানকে ডাকাতরা গড়াই নদীর পাড়ে মুখের মধ্যে বিষাক্ত পলিথিন ও গামছা দিয়ে অজ্ঞান করে মালামাল লুট করে নিয়ে ফেলে যায়। পরবর্তীতে খোঁজাখুজির পরে নদীর পাড় থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়েছিল। প্রায় এক মাস চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেলে বাড়ির পাশের বাগানে দাফন করা হয়। আজ নিহতের চাচাতো ভাই বাড়ি করার জন্য মাটি কাটতে গেলে মৃতদেহটি অক্ষত অবস্থায় পাওয়া যায়।

চৌরঙ্গী তদন্তের কেন্দ্রের ইনচার্জ ইনস্পেক্টর রাকিব হাসান জানান, মাটি কাটতে গিয়ে ২৫ বছরের পুরানো নুরুজ্জামান নামের এক ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার করে পুনরায় দাফন করেছে স্থানীয়রা।

এদিকে ২৫ বছরের পুরানো মৃতদেহ উদ্ধারের খবর ছড়িয়ে পড়লে উৎসুক জনতা ভিড় জমায় দেখার জন্য। লাশে কোন গন্ধ কিংবা পঁচন ছিলোনা। কাফনের কাপড় সামান্য নষ্ট হওয়ায় নতুন কাপড়ে কাফন দিয়ে দাফন করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here