দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথ : ৪ সংকটে পারাপার ব্যাহত

0
9

অনলাইন ডেস্ক।।
নাব্যতা সংকট, ঘন ঘন ফেরি বিকল, ঘাট সমস্যার পাশাপাশি শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌপথ অচলাবস্তার প্রভাবে বিভিন্ন গাড়ির চাপ বেড়ে ব্যস্ততম দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথে স্বাভাবিক ফেরিপারাপার ব্যাহত হচ্ছে। ফলে তিন কিলোমিটার দীর্ঘ ওই নৌপথ পাড়ি দিতে আসা গাড়িগুলো ফেরির নাগাল পেতে উভয় ঘাটে আটকা পড়ে দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হচ্ছে। আজ রবিবার দৌলতদিয়া ঘাটে আটকা পড়ে ঢাকাগামী শত শত বিভিন্ন গাড়ি।
বিআইডাব্লিউটিসির দৌলতদিয়া ও পাটুরিয়া ঘাট অফিস ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, এই নৌপথে চলাচলকারি ফেরিগুলো বহু দিনের পুরনো। সার্বক্ষণিক সচল রাখতে গিয়ে ইঞ্জিন সমস্যাসহ বিভিন্ন যান্ত্রিক ত্রুটি দেখা দেওয়ায় ওই ফেরিগুলো ঘন ঘন বিকল হয়ে পড়ছে। এ কারণে সেখানে লেগে থাকা ফেরির সংকট সহসা কাটছে না। বর্তমান খানজাহান আলী নামের একটি রোরো (বড়) ফেরি এবং অপর একটি কে-টাইপ ফেরি কেতকী বিকল হয়ে আছে। পাটুরিয়ার ভাসমান কারখানা ‘মধুমতিতে’ ওই ফেরি দুটির মেরামত কাজ চলছে। প্রয়োজনীয় সংখ্যক ফেরি সচল না থাকায় সেখানে স্বাভাবিক ফেরি পারাপার ব্যাহত হচ্ছে। এদিকে নৌপথের পাটুরিয়া প্রান্তে যমুনা নদীর পানি কমে নৌ চ্যানেলের বিভিন্ন পয়েন্টে নাব্যতা সংকট সৃষ্টি হয়েছে। প্রতিটি রো রো (বড়) ফেরি চলাচলরে জন্য কমপক্ষে ৮ ফিট পানির গভীরতা প্রয়োজন। কিন্তু সেখানে প্রয়োজনীয় পানির গভীরতা না থাকায় বড় ফেরিগুলোর স্বাভাবিক চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে।
এদিকে নৌপথের দৌলতদিয়া প্রান্তে চারটি ও পাটুরিয়া প্রান্তে চারটি ফেরিঘাট সচল রয়েছে। কিন্তু ঘাটগুলোর অধিকাংশ পন্টুন অনেক পুরনো। এ কারণে র‌্যামের কব্জা ভেঙে বিভিন্ন পন্টুনের পকেটপথ প্রায়ই বিকল হয়ে পড়ছে। পরে জোড়াতালি দিয়ে কোনরকমে সেগুলো সচল রাখা হচ্ছে। দৌলতদিয়ার ৫ নম্বর ঘাটের পন্টুনটি গতকাল শনিবার দুপুরে হঠাৎ বিকল হয়ে পড়ে। ঘন ঘন ফেরি বিকল, নাব্যতা সংকট, ঘাট সমস্যার পাশাপাশি শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌপথ অচলাবস্তার প্রভাবে বিভিন্ন গাড়ির চাপ বেড়ে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথে স্বাভাবিক ফেরিপারাপার ব্যাহত হচ্ছে। মাত্র তিন কিলোটিার দীর্ঘ ওই নৌপথ পাড়ি দিতে এসে গাড়িগুলো ফেরির নাগাল পেতে উভয় ঘাটে আটকা পড়ে দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হচ্ছে। আজ রবিবার দৌলতদিয়া ঘাটে আটকা পড়ে ঢাকাগামী শত শত বিভিন্ন গাড়ি। এর মধ্যে পণ্যবাহী ট্রাক ও কার্ভার্ড ভ্যানের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। এদিকে দৌলতদিয়া ঘাটে সৃষ্ট যানজট পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ঘাট থেকে ১৩ কিলোমিটার দূরে রাজবাড়ী সদর থানার গোয়ালন্দ মোড় এলাকায় দৌলতদিয়া ঘাটগামী অপঁচনশীল পণ্যবোঝাই বহু ট্রাক আটকে রেখেছে জেলা ট্রফিক পুলিশ। ঘাটপরিস্থিতি বিবেচনায় পর্যায়ক্রমে ওই ট্রাকগুলো সেখান থেকে ছেড়ে দেওয়া হচ্ছে। পাটুরিয়া ঘাটেও অনুরুপ অবস্থার সৃষ্টি হয়ে আছে।বিআইডাব্লিউটিসির উপমহাব্যাবস্থাপক মো. জিল্লুর রহমান কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘মানুষের দুর্ভোগ কমাতে অপঁচনশীল পণ্যবোঝাই ট্রাক ও কাভার্ড ভ্যানগুলো সাময়িকভাবে আটকে রেখে যাত্রীবাহী বাস, মাইক্রোবাস ও প্রাইভেট কারগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পারাপার করা হচ্ছে। তবে, পাটুরিয়া চ্যানেলে প্রয়োজনীয় খননকাজ শেষ হওয়া, বিকল ফেরিগুলো মেরামত শেষে বহরে ফিরে আসার পাশাপাশি শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌপথ সচল হওয়ার পর পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে আসবে বলে তিনি জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here