নেত্রকোণার উচিতপুরে নৌকা ডুবির ঘটনায় একই পরিবারের ৬জন সহ ১৭ জন নিহত

0
6

দৈনিক পদ্মা সংবাদ, অনলাইন ডেস্ক।

নেত্রকোণার মদন পর্যটন কেন্দ্র উচিতপুরে নৌকা ডুবির ঘটনায় ১৭ জন নিহত হয়েছে, নিখোঁজ ১। নেত্রকোণার মদন উপজেলায় পর্যটন কেন্দ্র মিনি কক্সবাজার নামে খ্যাত উচিতপুরের হাওরে ঘুরতে এসে নৌকা ডুবিতে ১৭ জন নিহত হয়েছে। নিখোঁজ রয়েছে আরো ১ জন । বুধবার দুপুরে মদনের উচিতপুরের সামনের হাওর গোবিন্দশ্রী রাজালীকান্দা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।

তারা ময়মনসিংহ ও নেত্রকোনার বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা। বর্তমানে মদন থানা প্রাঙ্গনে সকলের মরদেহ রাখা হয়েছে। পরিচয় নিশ্চিত হলে স্বজনদের নিকট মরদেহ বুঝিয়ে দেয়া হচ্ছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বুধবার সকালে ময়মনসিংহ সদর থানার চরশিরতা ইউনিয়ন ও নেত্রকোনা আটপাড়া তেলিগাতী থেকে মোট ৪৮ জন উচিতপুরে বেড়াতে আসে। তারা হলো: ১। সাইফুল ইসলাম রতন ময়মনসিংহ কোনাপাড়া (৩০), ২। জুবায়ের (২২), ৩। জহিরুল ইসলাম (৩৫), ৪। জাহিদ (২০), ৫। রাকিব (২০), ৬। স্বাদ (১০), ৭। মাহফুজুর রহমান (২৮), ৮। ঈশা মিয়া (৪০), ৯। আজাহারুল ইসলাম (৩৮) মাহমুদ মিয়া (১২), ১০। আশিফ (১৫), ১১। রেজাউল করিম (২১), ১২। মোজাহিদ (১৭), ১৩। হামিদুল (৩৫), ১৪। মাহবুবুর রহমান আশিফ (১৯), ১৫। লোবনা (১০), ১৬। জুলফা (০৭) নেত্রকোনা আটপাড়া তেলিগাতির ১৭। সামাহান (১০) ও ১৮। শফিকুর রহামান, (৪৫),

পরে নৌকাযোগে হাওরে ঘুরতে গেলে হাওরের উত্তাল ঢেউয়ে গোবিন্দশ্রী রাজালীকান্দা নামক স্থানে নৌকাটি ডুবে যায়। এতে পানিতে ডুবে ১৭ জন নিহত হয়। এলাকার স্বেচ্ছাবেসবক ও ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের মরদেহ উদ্ধার করে। নিখোঁজ একজনকে এখনো উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

এ বিষয়ে মদন উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ এ প্রতিনিধিকে জানান বিষয়টি খুব মর্মান্তিক ও হৃদয় বিধারক মরদেহ নেওয়া ও দাফন কাপনের জন্য ৭,০০০ টাকা করে দেওয়া হবে।

মদন থানার অফিসার ইনচার্জ রমিজুল হক জানান মৃত ব্যাক্তিদের সনাক্ত করে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তার করা হবে। এ বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান শেখ বদরুজ্জামান মানিক বলেন বিষয়টি সরেজমিনে গিয়ে দেখে ভিষণ মর্মাহত হয়েছি তবে আরো সতর্কতার শহিত পর্যটকরা যদি নৌকা চালকরা যদি কম যাত্রী নিয়ে যাতায়াত করত তাহলে মনে হয় এই দূর্ঘঠনায় অনেকের মায়ের বুক খালি হতো না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here