শাহাদাতের মারপিটের ঘটনায় নিষিদ্ধ শহীদ- আরাফাতও

0
0

খেলাধুলা ডেস্ক:
জাতীয় ক্রিকেট লীগে (এনসিএল)
মাঠে মারামারির ঘটনায় এক
বছরের স্থগিত নিষেধাজ্ঞা
পেয়েছেন ঢাকা বিভাগের
মোহাম্মদ শহীদ ও আরাফাত সানি
জুনিয়র। এই দুজনের খেলা চালিয়ে
যেতে কোনো বাধা নেই। তবে
আগামী ১২ মাসের মধ্যে এমন
ঘটনায় জড়ালে নিষেধাজ্ঞা
কার্যকর হবে। আর এই দুই
খেলোয়াড়ের ক্ষেত্রে শুধু মাঠের
ঘটনাই নয় মাঠের বাইরের আচরণও
বিবেচ্য হবে। একই ঘটনায় গত
মাসে শাহাদাত হোসেন
রাজিবকে পাঁচ বছরের
নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়। যার মধ্যে
দুই বছরের স্থগিত নিষেধাজ্ঞা।
এছাড়াও ৩ লাখ টাকা জরিমানা
করা হয় জাতীয় দলের বাইরে
থাকা পেসার শাহাদাতকে।
খুলনার শেখ আবু নাসের
স্টেডিয়ামে এনসিলের পঞ্চম
রাউন্ডের ম্যাচে খুলনা বিভাগ ও
ঢাকা বিভাগ মুখোমুখি হয়।
সেখানে ম্যাচের দ্বিতীয় দিন
মাঠে বল শাইনিং করা নিয়ে
ঢাকা বিভাগের শাহাদাত মাঠের
মধ্যে আরাফাতকে চড়-থাপ্পড়
মারা শুরু করেন।
শাহাদাতকে তখনই মাঠ থেকে
বের করে দিয়ে অভিযোগ আনা
হয়। পরবর্তীতে শুনানিতে জানা
যায় ঘটনার সূত্রপাত শহীদের হাত
ধরে। তাই শহীদ ও আরাফাত
দুজনকেই শুনানির জন্য ডাকা হয়।
বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের
(বিসিবি) টেকনিক্যাল কমিটির
প্রধান মিনহাজুল আবেদিন নান্নু
সংবাদমাধ্যমকে বলেন,
‘মোহাম্মদ শহীদ ও আরাফাত
সানি জুনিয়র দুজনে লেভেল টু
অপরাধে দায়ী। তাই তাদের এক
বছরের জন্য স্থগিত নিষেধাজ্ঞা
দেয়া হলো। তারা এখন খেলা
চালিয়ে যেতে পারবে। তবে
তাদের মাঠের ভেতর এবং বাইরের
আচরণ কড়া নজরদারিতে থাকবে।
তারা যদি আর কোনো অপরাধে
জড়িয়ে পড়ে, যে কোনো
জায়গায়। তখন থেকে এই
নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হবে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here