জয়পুরহাটের আক্কেলপুরে গৃহবধূর মাথার চুল কেটে নির্যাতন, আটক ৩

0
16

অনলাইন ডেস্ক।
জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার যৌতুকের দাবিতে হাত-পা বেঁধে গৃহবধূর মাথার চুল কেটে নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় পুলিশ স্বামী, দেবর ও শশুড়কে আটক করেছেন।

থানার মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত ২০১৫ সালে বগুড়া জেলার দুপচাঁচিয়া উপজেলার পৌওতাঁ গ্রামের মাহতাব হোসেন-এর মেয়ের সঙ্গে জয়পুরহাট জেলার আক্কেলপুর উপজেলার তিলকপুর ইউনিয়নের করজি গ্রামের আবুল কালাম আজাদ-এর ছেলে রুহুর আমিনের সঙ্গে বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হন। বিয়ের কিছু দিন পড় থেকেই গৃহবধূর শাশুড়ি, শশুড়, দেবর ও স্বামী মিলিয়ে পিতার বাড়ি থেকে যৌতুক আনার জন্য চাপ সৃষ্টি করেন। কয়েকবার টাকা এনে শাশুড়ী ও শশুড়ের হাতে তুলে দিয়েছেন।

চলতি মাসের ১০ অক্টোবর শনিবার আবারও যৌতুকের টাকা আনতে চাপ সৃষ্টি করলে গৃহবধূ পিতার বাড়ি থেকে যৌতুকের টাকার জন্য যেতে আপত্তি করেন। আর এতেই ক্ষিপ্ত হয়ে শাশুড়ি নাজমা (৫২), শশুড় আবুল কালাম আজাদ ওরফে বুলু (৬০) ও দেবর শাহিন (২৫) ও স্বামী রুহুল আমিন (৩০) সকলে মিলে গৃহবধূর হাত পা বেঁধে মাথার চুল কেটে একটি ঘরে আবদ্ধ করে রেখে বিভিন্নভাবে নির্যাতন চালাই গৃহবধূর উপর।

পরবর্তীতে গ্রামবাসীর থেকে খবর পেয়ে গত ১৮ অক্টোবর নির্যাতনের শিকার গৃহবধূর বাবা-মা সহ কয়েকজন স্বজন গৃহবধূর স্বামীর বাড়িতে গিয়ে তার মেয়ের মাথার চুল কাটা ও শরীর বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন দেখতে পায়।

নির্যাতিতা গৃহবধূ কিছুটা সুস্থ হলে গেলো ১৯ অক্টোবর আক্কেলপুর থানায় মামলা করেন।

আক্কেলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ আবুল লতিফ খাঁন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মামলা হওয়ার পর অভিযুক্ত স্বামী, শশুড় ও দেবরকে আটক করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here