October 1, 2022, 1:40 pm

কক্সবাজারের চৌফলদন্ডি থেকে ১৪ লাখ ইয়াবাসহ আটক ২

অনলাইন ডেস্ক।
কক্সবাজার সদরের চৌফলদন্ডী ঘাট থেকে সমুদ্রপথে পাচার হয়ে আসা ১৪ লাখ ইয়াবাসহ দুইজনকে আটক করেছে ডিবি পুলিশ। এ সময় পাচারকাজে ব্যবহৃত মাছ ধরার একটি ট্রলার জব্দ করা হয়েছে।
মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুর আড়াটায় কক্সবজার সদর উপজেলার চৌফলদন্ডী ইউনিয়নের চৌফলদন্ডী ব্রিজ সংলগ্ন খালের ঘাটে এ অভিযান চালানো হয় বলে জানান জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হাসানুজ্জামান।
আটকরা হল, কক্সবাজার পৌরসভার উত্তর নুনিয়ারছড়া এলাকার মো. নজরুল ইসলামের ছেলে মো. জহিরুল ইসলাম ফারুক (৩৭) এবং একই এলাকার মোহাম্মদ মোজাফ্ফরের ছেলে মোহাম্মদ বাবু (৫৫)।
এদের মধ্য মো. জহিরুল ইসলাম ফারুক একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ি। তার নামে কক্সবাজার সদর থানাসহ বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসার অভিযোগে একাধিক মামলা রয়েছে।
এছাড়া আটক মোহাম্মদ বাবু জব্দ করা মাছ ধরার ট্রলারটির মালিক।
এসপি হাসানুজ্জামান বলেন, সোমবার রাতে পুলিশের কাছে খবর আসে কক্সবাজারের বাঁকখালী নদীর মোহনা হয়ে সাগরপথে মিয়ানমার থেকে ইয়াবার বড় একটি চালান পাচার হয়ে আসার। এতে রাত জেলা গোয়েন্দা পুলিশের তিনটি দল কক্সবাজার পৌরসভার উত্তর নুনিয়ারছড়া আইডব্লিউটিএ ঘাট, খুরুশকূল ব্রিজ ও চৌফলদন্ডী ব্রিজ সংলগ্ন ঘাটে অবস্থান নেয়।
এক পর্যায়ে মঙ্গলবার দুপুর আড়াটায় চৌফলদন্ডী ব্রিজ সংলগ্ন খালের নৌঘাটে জেলের ছদ্মবেশে পুলিশের একটি দল সন্দেহজনক মাছ ধরার ট্রলারে অভিযান চালায়। এতে ট্রলারটি থেকে হাতেনাতে ২ জনকে আটক করা হয়।
পরে ট্রলারটিতে তল্লাশী করে সাতটি বস্তাটি পাওয়া যায়। বস্তাগুলো খুলে ১১৪টি প্যাকেট থেকে ১৪ লাখ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। প্রতিটি প্যাকেটে রয়েছে ১০ হাজার করে ইয়াবা। ইয়াবা পাচারকাজে ব্যবহৃত ট্রলারটি জব্দ করা হয়েছে।
এসপি বলেন, আটকরা একটি বিশাল সংঘবদ্ধ মাদক পাচারকারি চক্রের সদস্য। আটকদের জিজ্ঞাসাবাদ করে চক্রটির অন্য সদস্যদের ব্যাপারে তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে।
উদ্ধার হওয়া ইয়াবার চালানটির পাচারকাজে জড়িত অন্যদেরও গ্রেপ্তার করতে পুলিশ অভিযান অব্যাহত রেখেছে বলে জানান হাসানুজ্জামান।
এসপি জানান, আটকদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     আরও সংবাদ :