February 29, 2024, 2:23 am

চাঞ্চল্যকর মেহেদী হাসান স্বপন হত্যা মামলার অন্যতম আসমী ঝিনাইদহ থেকে গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক।

২১ জানুয়ারি ২০২২ তারিখ রাত আনুমানিক ২১.১৫ ঘটিকায় সময় সারুটিয়া তালতলা বাজারে যাওয়ার কথা বলে মেহেদী হাসান স্বপন নিজ বাড়ি থেকে বের হয়ে সারুটিয়া তালতলা ব্রীজের দক্ষিনে জাফর এর চায়ের দোকানের পূর্ব পাশে পৌছলে পারিবারিক, সামাজিক ও জমিজমা সংক্রান্তে দ্বন্দ্ব থাকায় মেহেদী হাসান স্বপন এর চাচাতো ভাই আসামী মোঃ আসাদ আলী অন্যান্য আসামীদের সহযোগীতায় পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে দেশীয় ও অস্ত্রসস্ত্রে সজ্জিত হয়ে মেহেদী হাসান স্বপনকে গুরুতর জখম করে। পরবর্তীতে ভিকটিমকে ফরিদপুর মেডিকেলে প্রেরণ করা হলে কর্তব্যরত চিকিসক তাকে মৃত ঘোষনা করে। এ বিষয়ে শৈলকুপা থানায় মামলা হলে র‌্যাব ছায়া তদন্ত ও গোয়েন্দ তৎপরতা শুরু করে এবং তদন্ত অনুযায়ী মৃত মেহেদী হাসান স্বপন এর হত্যা মামলার আসামীদের মধ্যে অন্যতম প্রধান আসামী ও হত্যার মূল পরিকল্পনাকারী মোঃ আসাদ আলী(২৫) কে চিহ্নিত করে।


এরই ধারাবাহিকতায় ইং ২৩ জানুয়ারি ২০২২ তারিখ র‌্যাব-৬ (ঝিনাইদহ ক্যাম্প) এর একটি চৌকস আভিযানিক দল গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে, ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা থানার উক্ত চাঞ্চল্যকর হত্যা মামলার অন্যতম প্রধান আসমী ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা থানাধীন সারুটিয়া এলাকায় অবস্থান করছে। প্রাপ্ত সংবাদের সত্যতা যাচাই ও আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের লক্ষ্যে আভিযানিক দলটি একই তারিখ ১৭.৩০ ঘটিকার সময় উক্ত স্থানে অভিযান পরিচালনা করে আসামী মোঃ আসাদ আলী(২৫), পিতা-মোঃ পান্নু মুন্সী, সাং-সারুটিয়া, থানা-শৈলকুপা, জেলা-ঝিনাইদহকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃত আসামীকে ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     আরও সংবাদ :