August 20, 2022, 8:47 am

দেশের সব কওমি মাদরাসা সহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের নির্দেশ

অনলাইন ডেস্ক।
প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং কোচিং সেন্টার বন্ধের পাশাপাশি কওমি মাদরাসাগুলোও বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। সোমবার (২৯ মার্চ) দুপুরে সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। করোনা প্রতিরোধে সোমবার (২৯ মার্চ) প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব ড. আহমদ কায়কাউস স্বাক্ষরিত ১৮ দফা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।এরমধ্যে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের নির্দেশনায় বলা হয়েছে, সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান (প্রাক-প্রাথমিক, প্রাথমিক, মাদরাসা, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, বিশ্ববিদ্যালয়) ও কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে।১৮ দফা নির্দেশনার বিষয়ে এদিন দুপুরে সচিবালয়ে ব্রিফিং করেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। নতুন নির্দেশনায় কওমি মাদরাসাগুলো বন্ধ থাকবে কি-না সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমরা এখানে উল্লেখ করে দিয়েছি, প্রাক-প্রাথমিক, প্রাথমিক, মাদরাসা, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, বিশ্ববিদ্যালয় ও কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে। শিক্ষার্থীরা আপাতত প্রতিষ্ঠানে আসবে না। তবে অনলাইনে ক্লাস চলবে।তিনি বলেন, মাদরাসার কথা স্পষ্টভাবে উল্লেখ করা আছে। এখানে শুধু কওমি না, সব মাদরাসা, সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে। করোনা ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়ছে। এখনি সংক্রমণ রোধ না করা গেলে সমস্যা হবে।
সাধারণ ছুটি ঘোষণার বিষয়ে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেন, এ পর্যন্ত আমাদের এ রকমের কোনো সিদ্ধান্ত নেই, সাধারণ ছুটি দেওয়ার ব্যাপারে এ পর্যন্ত কোনো আলোচনা হয়নি।আমাদের কার্যক্রম চলতে থাকবে। আমরা সতর্ক হলেই এটিকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারব।
পহেলা বৈশাখ উদযাপনে কী ব্যবস্থা নেয়া হবে জানতে চাইলে প্রতিমন্ত্রী বলেন, সব ধরনের জনসমাগম (সামাজিক/রাজনৈতিক/ধর্মীয়/অন্যান্য) সীমিত করতে হবে। ছোট পরিসরে কিন্তু কাজ করেছি এবং স্বাস্থ্য ঝুঁকি মাথায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমরা চলব।
উল্লেখ্য, করোনা ইস্যুতে গত বছরের ১৮ মার্চ থেকে অন্য সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। কিন্তু গত আগস্টে বিশেষ আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে কওমি মাদরাসায় শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করার অনুমতি দেয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

     আরও সংবাদ :