May 24, 2024, 4:55 pm

আশুলিয়ায় শিশু ধর্ষণ চেষ্টার আসামী পঞ্চগড় জেলা থেকে গ্রেফতার

সুচিত্রা রায়,স্টাফ রিপোর্টার:

আশুলিয়ার চাঞ্চল্যকর ০৪ বছরের শিশু ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি বাদশাহ’কে বোদা থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৪।

সোমবার (১৮এপ্রিল) গ্রেফতারের বিষয়টি প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে নিশ্চিত করেছেন র‍্যাব।

বিজ্ঞপ্তিতে জানান, ভুক্তভোগীসহ তার মা-বাবা আশুলিয়া থানার ইয়ারপুর ইউনিয়নের কাঠাঁল বাগান নামক এলাকায় একটি বাসায় ভাড়টিয়া হিসেবে বসবাস করতো। এবং গ্রেফতারকৃত আসামী পেশায় একজন রিক্সা চালক ও একই বাড়ীর ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করতো।

গত ২৮ মার্চ বেলা সাড়ে ১১টার দিকে শিশু ভিকটিম (০৪) বাসা হতে বের হয়ে সিড়ি দিয়ে নিচে নামার সময় আসামী মোঃ বাদশাহ (৪৩) ভুক্তভোগীকে চিপস/চকলেট খাওয়ানোর কথা বলে তার নিজ ঘরের ভিতর নিয়ে দরজা বন্ধ করে দেয়। বিষয়টি পাশের রুমের ভাড়াটিয়া দেখতে পেয়ে ভুক্তভোগীর মা’কে জানালে তাৎক্ষনিক ভুক্তভোগীর মা আসামীর রুমের দরজায় গিয়ে অনেক ডাকাডাকি করার পর দরজা খুলে। তখন ভুক্তভোগীর চিৎকারে আশেপাশের লোকজন জড়ো হয়ে ভিকটিমকে উদ্ধার করার জন্য ঘরে প্রবেশ করলে তৎক্ষণাৎ আসামী বাদশাহ ঘটনাস্থল হতে পালিয়ে আত্মগোপনে চলে যায়। উক্ত ঘটনার পরে গত ২৯ মার্চ ভুক্তভোগীর মা বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি ধর্ষণ চেষ্টা মামলা দায়ের করেন। উক্ত ঘটনায় প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিকস্ মিডিয়াসহ এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। ফলশ্রুতিতে র‌্যাব-৪ এর একটি গোয়েন্দা দল পুলিশের পাশাপাশি আসামী গ্রেফতারে ছায়া তদন্ত শুরু করে।

এরই ধারাবাহিকতায় গোয়েন্দা সংবাদ ও স্থানীয় সোর্সের সহায়তায় জানা যায় আসামি মোঃ বাদশাহ (৪৩) পঞ্চগড় জেলার বোদা থানাধীন কাজলদিঘী এলাকায় অবস্থান করছেন। এমন সংবাদের ভিত্তিতে, র‌্যাব-৪ এর একটি আভিযানিক দল র‌্যাব-১৩ এর সহায়তায় ১৮ এপ্রিল রাত দেড়এার পঞ্চগড় জেলার বোদা থানাধীন কাজলদিঘী এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে শিশু ধর্ষন মামলার পলাতক আসামী কে গ্রেফতার করে। গ্রফতার মোঃ বাদশাহ (৪৩), নওগাঁ জেলায় বাড়ি।

র‍্যাব আরো জানিয়েছেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত ধর্ষণ চেষ্টার কথা স্বীকার করেছেন। গ্রেফতারকৃত আসামী’কে আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     আরও সংবাদ :